শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ০৯:১৭ অপরাহ্ন
বিশেষ ঘোষণা :
সময়ের সাথে সাথে প্রযুক্তিও পাল্টে যাচ্ছে ! তাই বদলাতে হচ্ছে আমাদেরও। আপনি এখন দেখতে পাচ্ছেন সিটি নিউজ পোর্টালের আপডেট ভার্সন। নতুন সাইটে আপনি আরো দ্রুততার সাথে ঝপটপ খবর পড়ে নিতে পারবেন। ২০১৬ সাল থেকে এ পর্যন্ত আমরা ছয় বার সাইট আপডেট করেছি। অনিচ্ছাকৃত ত্রুটির ক্ষমা প্রার্থণা: ওয়েব সাইটটি আপডেট করার সময় পুরনো সাইটের কমবেশি ১০ শতাংশ খবর ”ডাটালস” এর কারণে কোনও পুরনো লিঙ্ক নাও খুলতে পারে। এটা একান্তই টেকনিক্যাল গ্রাউন্ড। যে কারণে সিটি নিউজের সম্পাদকীয় বিভাগ আন্তরিকভাবে ক্ষমা প্রার্থী। সঙ্গে থাকুন।

মুন্নার ওয়ার্ডে সেলিম ওসমান, বললেন মেয়রের সাথে আমার কোন দ্বন্দ্ব নাই

সিটি নিউজ / ৬৭ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : বুধবার, ২৭ ডিসেম্বর, ২০২৩

আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনে সংসদ সদস্য পদ প্রার্থী সেলিম ওসমানের নির্বাচন উপলক্ষ্যে মত বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বুধবার (২৭ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় কাউন্সিলর কামরুল হাসান মুন্নার ১৮নং ওয়ার্ডের বাপ্পী চত্বরে এ নির্বাচনী মত বিনিময় সভার আয়োজন করা হয়।

বাংলাদেশ পাট আড়ৎদার সমিতির সভাপতি ফয়েজ উদ্দিন আহমেদ লাভলুর সভাপতিত্বে মত বিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য প্রার্থী সেলিম ওসমান।
এসময় তিনি বলেন, আমাদের নারায়ণগঞ্জ প্রাচ্যের ডান্ডি। যদি আমরা মিলেমিশে কাজ করি তাহলে আগামী ৫ বছরে নারায়ণগঞ্জ জ্বল জ্বল করবে। মেয়র আর আমার মাঝে কোন দ্বন্ধ বা বিভেদ নেই। নীট রপ্তানি করে সারা পৃথিবীতে আমরা প্রথম স্থানে রয়েছি। প্রায় দুই কোটি লোকের কর্মসংস্থান এখানে। সকলে বলে আমি নাকি ৮০ ভাগ কাজ করেছি কিন্তু আমি মনে করি আমি মাত্র ২০ ভাগ কাজ করেছি। যেই গ্যাস ১০০ বছর থাকার কথা ছিলো সেটা মাত্র ৫০ বছরেই শেষ হয়ে গিয়েছে। কারন একটা ম্যাচের কাঠি বাঁচানোর জন্যেও মানুষ সারাদিন চুলা জ্বালিয়ে রাখতো। সেই অপচয়ের কারনেই আজকে গ্যাসের এমন অবস্থা। করোনাকালীন সময়ে আমি যতটুকু সম্ভব কাজ করা দরকার করেছি। স্কুল করেছি অনেক, ভাতার ব্যবস্থা হয়েছে। আমি চাই আল্লাহকে খুশি করতে। আমি যেটা বলি সেটা করি আর যেটা না বলি সেটা করি না। আমি মেয়রকে সাথে নিয়ে কাজ করেছি। আমাকে ভোট দিতে হবে এমন কোন কথা নেই কিন্তু ৭ তারিখ আপনারা কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিবেন।
মত বিনিময় সভায় নাসিক ১৮নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর কামরুল হাসান মুন্নার সঞ্চালনায় আরো উপস্থিত ছিলেন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান চন্দন শীল, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. আবু হাসনাত মোঃ শহীদ বাদল, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহা, জেলা জাপার সভাপতি সানাউল্লাহ সানু, বন্দর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজীম উদ্দিন প্রমূখ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

বিভাগীয় সংবাদ এক ক্লিকেই